SWOT क्या है

SWOT Full Form In Hindi and Bengali-SWOT কাকে বলে?क्या है?

প্রিয় দর্শক সবাই কেমন আছেন। আমাদের ওয়েবসাইট  Karmasthan এ আশার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ জানাই। আমারা এই ওয়েবসাইট এ সমস্ত রকম চাকরীর খবর ও সঙ্গে সমস্ত কিছু সুম্পুন্ন নাম দিয়ে থাকি। আজকে আমি যেই পোস্টটি নিয়ে আলোচনা করবো সেটি হল SWOT Full form, যে SWOT কি?  SWOT Analysis  কি ?  SWOT Analysis কেন করবেন?  SWOT Analysis  আপনার কি কাজে আস্তে পারে!  SWOT Analysis আপনি কীভাবে করবেন?  SWOT Analysis কোন Reference Book, SWOT Full form হিন্দিতে (SWOT Full Form In Hindi),SWOT analysis in Hindi, SWOT full form in english,SWOT full form in bengali. আজকে আমি মূলত এই বিষয় গুলো নিয়ে আলোচনা করবো। চলুন দেখা নেওয়া যাক আজকের বিষয়।

আজকে আমি আপনার জীবনের একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় নিয়ে আলোচনা করতে চলেছি। প্রত্যেকের চলার পথে তার সঠিক সিদ্ধান্ত তাকে আগে নিয়ে যাবে বা তাকে সঠিক রাস্তায় নিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে সাহায্য করে। আর আপনার সঠিক সিদ্ধান্ত আপনার জীবনে আরও প্রভাব ফেলবে। আপনি যেইরকম চিন্তাভাবনা করেন, বাঁ যেই স্বপ্ন দেখেন, সেটা সত্যি করতে সাহায্য করবে এবং  আপনার সঠিক সিদ্ধান্তই আপনার স্বপ্ন সত্যি হবে। আপনার কোন ভুল সিদ্ধান্ত আপনার স্বপ্ন সত্যি হতে বাঁধা দেবে বাঁ বাঁধা হয়ে দাঁড়াবে। তাই আজকে আমি যে কৌশল বা নিয়ম ব্যবহার করে আপনি, আপনার জীবনে সঠিক সিদ্ধান্ত নেবেন  সেই সম্পর্কে আলোচনা করতে চলেছি। এটি হল এসডব্লট এই নামে পরিচিত। যদি আপনি জানতে চান যে SWOT কী, সঠিক সিদ্ধান্ত নেওয়ার পেছনে SWOT এর ভূমিকা কী, যা আপনার জিবনে সঠিক সিধান্ত নিতে সাহায্য করবে। তাহলে এই পোস্টটি সম্পুন্ন পড়ুন। যা আপনার জীবন বদলে দিতে পারে।

SWOT Analysis কি?

এসডব্লট এমন একটি কৌশল যা আপনার জীবনে সঠিক সিধান্ত নেওয়ার ক্ষেতে সাহায্য করবে। তাই আপনি আপনার জীবন এ কোন রকম সিধান্ত নেওয়ার আগে সোয়াট বিশ্লেষণ করবেন সেটা কোন রকম ছোট সিধান্ত হোক বাঁ বড়ো। SWOT Analysis করা প্রতেক এর জীবন এ জরুরি।

চলুন আগে জেনে নেওয়া যাক এই SWOT অর্থ কি, এইখনে SWOT এর এই চারটে Word আলাদা আলদা মানে আছে। আর জেইগুলি আমদের জীবন এ মেনে বাঁ SWOT Analysis করে চলা উচিত। তো প্রথম এ আমরা জানবো SWOT-এর S এর মানে, S মানে হল Strengths, আর W-মানে হল Weakness, আর O-এর মানে হল Opportunities, আর T-এর মানে হল  Threats. এই চারটি জিনিস এ আমদের সকলের জীবন এর সাথে জ্বরিত। আর এই চারটি জিনিস এর সাহাতা নিয়ে আমরা,আমাদের জীবন এর ছলার পথ সহজ সরল করে তুলব। আর এই সোয়াট বিশ্লেষণ হল একটি সঠিক মাধ্যম বাঁ কৌশল যা একটি বাক্তির “শক্তি” ক্ষমতা মানে ওই বাক্তির কোন জেইগাই বেশি শক্তিশালী বাঁ ওই বাক্তির “দুর্বলতা” মানে ওই বাক্তি কোন জেইগাই দুর্বল, তাঁর ফলে সে কিছু কাজে নিজেকে প্রমানিত করতে পারে না। আর ওই বাক্ত্রির “সুযোগ” মানে ওই বাক্তি তাঁর জীবন এ সুযোগ গুলো কে কীভাবে কাজে লাঘিয়ে সফল তিনি। এবং ওই বাক্তির জীবন এর চ্যালেঞ্জগুলি মানে তিনি কীভাবে সেই গুলি গ্রহন করে, জীবন এ এগিয়ে চলেছে, সেই বিষয়ে জানবো এই কৌশল ব্যবহার করে, কারন মানুষ যতোই আপনাকে বিচার করুক না কেন। আপনি একমাত্র মানুষ যা আপনি আপনাকে মানে নিজেকে সঠিক বিচার করতে পারবেন। যা অন্য কেউ পারবে না। তাই আসুন আজকে এই কৌশল ব্যবহার করে আমরা শিখি যে আমরা আমদের কে, মানে নিজেদের কে কীভাবে বিচার করবো। যাতে আমরা আমদের কাজের সঠিক ফল পাই। এবং জীবন এ বাঁধা বিপতি কাটিয়ে চলতে পারি।

SWOT এর সম্পুন্ন নাম  – SWOT Full Form In Bengali

  • SWOT Full Form In Bengali – শক্তি, দুর্বলতা,সুযোগ,চ্যালেঞ্জ
  • SWOT Full Form In English – Strengths, Weaknesses, Opportunities, and Threats
  • SWOT Full Form In Marathi – सामर्थ्य, दुर्बलता, संधी आणि धमक्या
  • SWOT Full Form In Hindi – शक्तियों, कमजोरियों, अवसरों, और खतरों

  • SWOT Full Form In Gujrati – શક્તિ, નબળાઇઓ, તકો અને ધમકીઓ

SWOT Analysis কি ভাবে করবেন?

আপনি যদি শর্ট এনালাইসিস করতে চান তাহলে আপনাকেই চারটি জিনিস মাথায় রাখতে হবে। একটি হল Strengths, দ্বিতীয়টি টি হল Weaknesses, তৃতীয়তঃ Opportunities, এবং লাস্ট Threats এই চারটি জিনিস আপনাকে মাথায় রেখে চলতে হবে। এবার আসুন আপনি  কিভাবে  এই গুলি  বিশ্লেষণ করবেন।

চলুন প্রথমে আমরা একটি খাতা নিয়ে নেই এবং ওই সাদা পাতায় আমরা নোটস করবো আমাদের এই চারটি জিনিস।আপনি যখন এটি আপনারে খাতা লিখবেন  তখন আপনি আপনার মস্তিষ্ককে ঠান্ডা রাখুন। এবং একটি নির্জন জায়গায় যান, বা একা ঘরের মধ্যে বসে ভেবে ভেবে আপনার এই চারটি দিক আপনি নোট করুন যেমন আপনি আপনার খাতাই চারটি পাতা নিন যেইখানে, আপনি প্রথম পাতাই লিখবেন Strengths, এবং ওই খাতার দ্বিতীয় পাতাই আপনি লিখবেন Weakness এর সমন্ধে, এবং তৃতীয় পাতাই লিখবেন  Opportunities, এবং শেষ পাতাই বাঁ চার নাম্বার পাতাই লিখুন Threats. এই চারটি হেডিং করবেন আপনি আপনার খাতার চারটি পাতাই। এইবার আপনাকে এই চারটি হেডিং বাঁ বিষয় নিয়ে, নিজেকে নিজের ওপর প্রশ্ন করতে হবে। এবং আপনার উত্তর আপনি সতত্তা এবং আত্মনির্ভর ভাবে ঠাণ্ডা মাথাই দেবেন।

আপনি ভাবছেন এই চারটি বিষয়ে আপনি আপনার জীবন কোন কোন ঘটনা গুলো লিখবেন? চলুন আপনার কাছে বিষয়টা সহজ করে দিয়। তাঁর মধ্যে Strengths আর Weakness একজন বাক্তির INTERNAL Facetor ওপর কন্সিডার করতে হবে সেই গুলো এবং Opportunities আর Threats একজন বাক্তির EXTARNAL Facetor গুলো কন্সিডার  করতে হবে সেটি। যার মধ্যে প্রথম এবং তৃতীয় বিষয় টি আপনার পক্ষে সহায়ক। এবং দ্বিতীয় ও চতুর্থ বিষয়টি আপনার জীবন এ ক্ষতি কারক

আসুন আমরা SWOT এর প্রথম ওয়ার্ড S—Strengths দিয়ে শুরু করি, এই হল আমদের মধ্যে থাকা শক্তি, এবং আমরা আমদের মধ্যে থাকা শক্তি বাঁ আমদের জীবন এ ঘতে যাওয়া ঘটনা বাঁ আমদের জীবন এ যা চলছে যে ক্ষেতে আমরা আমাদের এই শক্তি কে কাজে লাগাই। এই রকম এ কম করে  ১০ টা পয়েন্ট  আমরা লিখব খাতাই। শক্তি এর ক্ষেত্রে দেখুন যে আপনি যেমন আপনার শিক্ষাগত যোগ্যতা, আপনার জ্ঞান, আপনার ট্রেনিং, আপনার বিভিন্ন কাজের অভিজ্ঞতা। বা আপনার সফট স্কিল, আপনার মধ্যে থাকা প্রতিভা বা আপনার ছোট বড় কোন কাজেরই দক্ষতা একটি তালিকা তৈরি করুন।

উদাহরণ স্বরূপ আপনি এইভাবে নোট করতে পারেনঃ-

Examples:-

  • I am good in MS word And Excel Power Point
  • I Can Speak English Fluently
  • I am A Good Football Player
  • I am Emotionally intelllgent

এতাদ্দি, এছাড়াও আপনার বন্ধু বান্ধব রা আপনার কাছ থেকে কি রকম সাহায্য নেই। এতার একটা তালিকা খুঁজে বের করুন। এছার আপনাকে খুঁজে বের করতে হবে আপনার মূল্য বোধ ওই নৈতিকতা যা আপনাকে সকলের থেকে আলাদা করে রেখেছে। আরও খুঁজে বের করুন আপনার মধ্যে কি গুন রয়েছে? এছাড়াও আপনি এখন ও অব্দি আপনার লাইফ কি কি মূল্যবান কাজ করেছেন। যেমন ধরুন রক্তদান করা, অথাবা গরিব মানুসের পাশে দাঁড়ানো এতাদ্দি। এর পরে আপনি যদি নিজের গুন বাঁ ভালো শক্তি সালি দিক গুলো খুঁজে না পান। আপনি আপনার বন্ধু বান্ধব ও বাড়ি মা বাবা কাছে জিগাসা করুন আপনার মধ্যে কি ভালো লাগে তাঁদের। এই ভাবে কম পক্ষে ১০ টি পয়েন্ট লিখে ফেলুন।

এইবার আমরা দ্বিতীয় পয়েন্ট এ চলে  এসেছি। মানে Weakness এ এইখনে আপনাকে আপনার কোন কোন দিক গুলিতে আপনি দুর্বল বা আপনার দুর্বলতা আছে সেটি খূজে বের করতে হবে।যেমন আপনাকে খুঁজে বের করতে হবে। আপনার বন্ধুরাও সহকর্মীরা আপনার যেসকল দুর্বলতার দিকগুলি নিয়ে আলোচনা করে সেই গুলো খুজে বের করুন,এছাড়া আপনার বদ অভ্যাস গুলো কি, কি যেমন ধরুন আপনি আপনার কোন কাজের ক্ষেত্রে অনীহাবোধ করেন কিনা?এছাড়াও ধরুন আপনি আপনার কর্ম ক্ষেত্রে আপনার কাজ সঠিক টাইমে করতে পারছেন কিনা? বা আপনাকে আরও খুঁজে বের করতে হবে, আপনি কোন কাজগুলো করতে ভয় পান? বাঁ কোন কাজগুলো ভয়ের কারণে আপনি এড়িয়ে চলেন। এই সমস্ত ব্যাপারে একটি কাজের তালিকা তৈরি করুন বাঁ লিখে ফেলুন।আমি আমার জীবনের কোন ক্ষেত্রগুলিকে উন্নতি করতে পারি? আমার খারাপ অভ্যাসগুলি বাঁ Weakness গুলি কী কী,এই সমস্ত বিষয়গুলি আগের  এর মতো করে যেমন আমরা দশটি পয়েন্ট লিখেছিলাম সেই রকম এখানে দশটি পয়েন্ট লিখব।জেনে রাখুন সকলের মধ্যেই দুর্বলতা আছে প্রত্যেক মানুষের মধ্যেই কিছু না কিছু দুর্বল দিক থাকে। তাই আপনি ভেঙে পড়বেন না, আপনি আপনার ওপর কাজ করুন। বা আপনার কাজের ওপর মন দিন। এবং আপনার কাজের দুর্বল দিক গুলি খুঁজে বের করুন।

এবারে আমরা তৃতীয় পয়েন্টে এসে যে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করতে চলেছি। সেটি হল আমাদের অপরচুনিটি O-Opportunities এই পয়েন্টে এসে আমরা আমাদের জীবনে যে সুযোগ গুলি পায় সুযোগ পেতে চলেছি।Opportunities সেই সম্বন্ধে লিখব। যেমন ধরুন আপনি আপনার Strengths মানে আপনার শক্তি ও আপনার উইটনেস মানে আপনার দুর্বলতাকে কাজে লাগিয়ে একটি গভর্মেন্ট জব Govt Job এর জন্য প্রিপারেশন নিচ্ছেন। সেটিকে খুঁজে বের করতে সাহায্য করবে ধরুন আপনি মার্কেটিং এর উপর কোন জব খুজছেন তাহলে আপনাকে মার্কেটিং এর উপর চাকরি খোঁজার খেতে সাহায্য করবে। মানে আমাদের যা আমাদের চারিদিকে আমরা কিভাবে কোন সাহায্য পেতে পারি,বা আমাদের ভবিষ্যতে কি কি পদ রয়েছে? বা কোন সেক্টরে এগিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে কোন কাজ আমার পক্ষে করা উচিত ইত্যাদি আমরা এই পদ্ধতির মাধ্যমে খুঁজে বের করতে পারি।এর জন্য আপনি আপনার এখনকার টেকনোলজিকে ব্যবহার করতে পারেন যেমন ধরুন লিংক ইন্ডিয়া, ইনস্টাগ্রাম, ফেসবুক, এই সমস্ত জায়গায় বিভিন্ন রকম মানুষ, জুড়ে আছে। বা বিভিন্ন রকম এম্প্লয়মেন্ট এজেন্সি আছে যাদের সাথে আপনি যোগাযোগ করে আপনার এই জিনিসগুলো আমি খুঁজে পেতে পারেন। যাই হোক এইবার আমরা আমদের শেষের পয়েন্ট এর দিকে এগিয়ে যাব আপনি এইভাবে ১০ টা পয়েন্ট লিখে ফেলুন।

এইবার আমরা একদম লাস্ট পয়েন্ট এ চলে  এসেছি যেইখানে আমরা আমদের লাস্ট ওয়ার্ড T-Threats  আমরা উপরের যে পয়েন্টগুলো আলোচনা করেছি আপনার শক্তি এবং আপনার অপরচুনিটি মানে আপনার জীবনের সুযোগ। এই দুটি আপনার মধ্যে থাকলে Threats অটোমেটিক চলে আসবে। বা প্রত্যেক মানুষের জীবনেই থেকেই থাকে থ্রেডস, আর এই থ্রেডস বিভিন্ন রকম হতে পারে। থ্রেডস এর মানে হল হুমকি, মানে এতো ক্ষণ অব্দি আপনি যা অর্জন করেছেন বাঁ আপনার সুযোগ এতাদ্দি বাঁধা দেয় এই হুমকির বাঁ Threats.ধরুন আপনি উচ্চশিক্ষিত kintu আপনি সঠিক চাকরি নির্ধারণ করতে পারছেন না, বা পাচ্ছেন না। তার জন্য আপনি Frustration এ চলে যেতে পারেন এটা আপনার কাছে এক প্রকার থ্রেডস। বাঁ ধরুন আপনি কোন কাজ থেকে নিজেকে গুটিয়ে রাখছেন বা অনীহা বোধ করছেন এটা আপনার কাছে এক প্রকার থ্রেডস মানে আপনি Inertia ভুগছেন বাঁ সঠিক কাজ,আপনি সঠিক সময়ে করতে পারছেন না। বা করার ক্ষেত্রে আপনি অনিয়া বোধ করছেন আপনার মন বসছে না। এছাড়াও Scared To Take Risk মানে আপনি কোন কাজের ক্ষেত্রে রিক্স বাচ্চা আপনি তে ভয় পান। বাঁ Financial Crisis একটা প্রত্যেকের জীবনে থাকে বা আপনার ক্ষেত্রেও থাকবে। মানে এই কয়েকটি বিষয়ে আপনাকে মাথায় রাখতে হবে। বা এই কয়েকটি বিষয় আপনাকে ভেবে চলতে হবে। আপনাকে করতে হবে যে আমার লক্ষ্য কি? আমার সেই লক্ষ্যে পৌঁছাতে কোনটা আমায় বাধা দিচ্ছে? বা আমার লক্ষ্যে পৌঁছাতে কি কি অসুবিধা হতে পারে! বা ভবিষ্যতে আমি কি কি বাধা সম্মুখীন হতে পারি! এই কয়েকটি প্রশ্ন আপনার মাথায় রাখতে হবে বা ওই খাতায় নোট ডাউন করুন।

এইবার সমস্ত কিছু লেখা হয়ে যাওয়ার পরে, প্রত্যেকটি পাতায় আপনি যে বিষয়ে লিখেছেন সেই বিষয়টিকে কয়েকবার ভালোভাবে ঠান্ডা মাথায় পড়ুন। এই আপনি তৃতীয় পাতা লেখা আপনার সমস্ত Opportunities এর সাথে আপনার Strengths কি মিলয়ে দেখুন আপনাকে ভালো কাজ, বাঁ জীবন এ এগিয়ে যেতে সাহায্য করবে। আর এই সমস্ত কাজে সাফল্য ক্ষেতে যেটা তমার বাঁধা হয়ে দারাবে সেটা হল তোমার দ্বিতীয়  পাতা লেখা Weakness পয়েন্ট ও চার নাম্বার পাতা লেখা তোমার Threats এর পয়েন্ট গুলো। এইবার কি বুঝলেন আপনার থ্রেডস ও আপনার দুর্বলতা আপনার সাফল্য পেছেনে বাঁধা হয়ে দারাছে।এখন আপনার নিজের উপর নির্ভরশীল হতে হবে। এবং আপনি কীভাবে নিজের এই দুর্বলতাগুলি মোকাবেলা করেনন সেই বিষয়ে ওপর ধ্যান বাঁ মনোযোগ দিতে হবে মানে আপনি যেই ৩ নম্বর পাতাই Opportunities পয়েন্ট গুলো লিখেছেন ওই গুলো। বেশি করে মনোযোগ দিন আপনার Strengths বাঁ শক্তি কে কাজে লাগিয়ে তাহলে দেখবেন আপনার সমস্ত  থ্রেডস  বাঁ দুর্বলতা আস্তে আস্তে চলে গেছে।

আশাকরি এই পোস্টটি আপনার কাছে মূল্যবান ভুমিকা নিয়েছে আপনার জীবন এ সঠিক সিধান্ত নিতে। এতে যদি আপনার উপকার হয়ে থাকে। এটি আপনি আপনাদের বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে পারেন।

আজকে আমরা কি শিখলাম?

আজকে আমরা এই পোস্ট শিখলাম SWOT কী, SWOT এর পুরনাম,  SWOT क्या हैSWOT का पूरा नाम SWOT Full Form In Hindi and bengali

ধন্যবাদ এই পোস্টটি এতো ক্ষণ মনোযোগ দিয়ে পড়ার জন্য।

এছাড়াও আপনি যদি চাকরী খবর পেতে চান 👉 Government Job

4 thoughts on “SWOT Full Form In Hindi and Bengali-SWOT কাকে বলে?क्या है?”

  1. Pingback: What is the full form of atm-ATM full form: atm ka full form

  2. Pingback: DDC full form: Tow deference meaning ddc - Karmasthan

  3. Pingback: PWD Full Form in Bengali and Hindi पी.डब्लू.डी क्या है?

  4. Pingback: ntpc full form-ntpc ka full form:ntpc full form in hindi

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top